অর্থনীতি

মজুরি কি? বিভিন্ন পেশায় মজুরি হারের পার্থক্যের কারণ

আজকের আলচনার বিষয় মজুরি কি মজুরি কাকে বলে এবং বিভিন্ন পেশায় মজুরি হারের পার্থক্যের কারণ তাহলে চলুন শুরু করা যাক…….মজুরি হলাে শ্রমিকের শ্রমের দাম। শ্রমের বিনিময়ে মালিক শ্রমিককে যে পারিশ্রমিক প্রদান করে, তা হলাে মজুরি। অর্থাৎ কোনাে শ্রমিক তার শারীরিক ও মানসিক শ্রমের বিনিময়ে উৎপাদন কাজে সহায়তা করার জন্য পারিশ্রমিক বাবদ কোনাে নির্দিষ্ট সময়ে যা উপার্জন করে তাকে মজুরি বলে। বিভিন্ন অর্থনীতিবিদ বিভিন্নভাবে মজুরিকে সংজ্ঞায়িত করেন। অধ্যাপক বেনহাম-এর মতে,

“চুক্তির অধীনে কাজ করার জন্য নিয়ােগকর্তা শ্রমিককে শ্রমের বিনিময়ে যে অর্থ প্রদান করে তাকে মজুরি বলে।

অর্থনীতিবিদ কে. কে. ডুয়েট বলেন,

“শ্রমিকের সেবার বিনিময়ে যে দাম দেওয়া হয় তাকেই মজুরি বলা হয়।”

অর্থনীতিবিদ সেলিগম্যান-এর মতে,

“শ্রমিকের পারিশ্রমিককে মজুরি বলা হয়।

মজুরি কি বিভিন্ন পেশায় মজুরি হারের পার্থক্যের কারণ
মজুরি কি বিভিন্ন পেশায় মজুরি হারের পার্থক্যের কারণ

বিভিন্ন পেশায় মজুরি হারের পার্থক্যের কারণঃ

মজুরি হারের মধ্যে পেশাগত পার্থক্য থাকে। যেমন—একজন চিত্র তারকা একজন ক্যামেরাম্যান অপেক্ষা এবং একজন ডাক্তার তার কম্পাউন্ডার অপেক্ষা বেশি উপার্জন করেন। এ ধরনের মজুরি হারের পার্থক্যকে উল্লম্ব পার্থক্য বলে। নিচে বিভিন্ন পেশায় মজুরি হারে পার্থক্যের কারণ গুলি দেখানো হলো।

১. প্রতিযােগিতার অভাব : যে সকল পেশায় শ্রমিকদের মধ্যে প্রতিযােগিতার অভাব লক্ষ্য করা যায় , সে সকল
কাজে নিয়ােজিত শ্রমিকরা অন্যদের চেয়ে তুলনামূলক বেশি উপার্জন করে। যেমন— দারােয়ান, বৈদ্যুতিক মিস্ত্রীর।বেতন তুলনামূলক অধিক হয়। কারণ ইচ্ছা করলেই যে কেউ তার কাজ করতে পারে না।

২. কাজের প্রকৃতি : কাজের প্রকৃতির উপর মজুরির হার নির্ভর করে। যেসব কাজ সম্মানজনক, সহজ,
আরামদায়ক, সে সব কাজে মজুরি কম হয়। পক্ষান্তরে যেসব কাজ কষ্টদায়ক, কুঁকিবহুল, কম সামাজিক মর্যাদার,সেসব কাজে মজুরি অধিক হয়।

৩, দক্ষতার পার্থক্য : দক্ষ শ্রমিক অদক্ষ শ্রমিক অপেক্ষা বেশি মজুরি পায়। অর্থাৎ বিভিন্ন শ্রেণির শ্রমিকদের মধ্যে
স্বাভাবিক নৈপুণ্যের (natural skill) পার্থক্যের কারণেও তাদের মধ্যে দক্ষতার তারতম্য সৃষ্টি হতে পারে এবং মজুরির হারে পার্থক্য হয়ে থাকে।

৪. কাজের স্থায়িত্ব : স্থায়ী কাজে শ্রমিকের যােগান অধিক হয় বিধায় এক্ষেত্রে মজুরি কম, অস্থায়ী কাজে শ্রমিকের যােগান কম বিধায় মজুরি অধিক হয়। এভাবে কাজের স্থায়িত্বের উপর মজুরি হার নির্ভর করে।

৫. কাজের ঝুঁকি ও দায়িত্ব : যে সব কাজ ঝুঁকিবহুল এবং দায়িত্বপূর্ণ সেসব কাজে মজুরি বেশি হয়।
পক্ষান্তরে, যে সব কাজে ঝুঁকি ও দায়িত্ব কম থাকে, সে সব কাজে শ্রমিকের মজুরি কম হয়। যেমন একজন ব্যাংক ম্যানেজার ও একজন কয়লা খনির শ্রমিকের কাজ অত্যন্ত ঝুঁকিবহুল এবং দায়িত্বপূর্ণ, তাই তারা অধিক মজুরি লাভ করে।

৬. পদমর্যাদা : শ্রমিক কর্মচারীদের মধ্যে পদমর্যাদা সব প্রতিষ্ঠানে একইরূপ হয় না। কোথাও শ্রম এবং শ্রমিক
সম্মানিত আবার অন্যত্র এটি শােষিত, বঞ্চিত, নির্যাতিত। তাই মজুরির হারও বিভিন্ন পেশায় বিভিন্ন হয়।

৭. শ্রমিকদের গতিশীলতার অভাব : যাতায়াত খরচ, শিক্ষা ব্যয়, ভাষা ও রীতিনীতির পার্থকা, স্থানীয় আকর্ষণ
ইত্যাদি কারণে শ্রমিকদের মধ্যে পূর্ণ গতিশীলতার অভাব দেখা যায়। এর ফলে কোথাও শ্রমিকের যােগান বেশি আবার কোথাও শ্রমিকের যােগান কম । তাই মজুরি হারে পার্থক্য সৃষ্টি হয়।

৮, পেশী শিক্ষার ব্যয় : যে সব পেশা শিক্ষার জন্য বেশি অর্থ ব্যয় করে শিক্ষা গ্রহণ করতে হয়, সে সকল
পেশায় মজুরি বেশি হবে। অপরদিকে, পেশা শিক্ষার খরচ কম হলে মজুরি কম হয়।

৯. ভবিষ্যতে উন্নতি : যে সকল কাজে ভবিষ্যতে উন্নতি লাভের সম্ভাবনা রয়েছে, সে সকল কাজে মজুরি কম।

১০, সামাজিক মর্যাদা : যে সকল কাজে সামাজিক মান মর্যাদা বেশি সে সকল কাজে মজুরি কম হলেও শ্রমিক
পাওয়া যায়। অন্যদিকে যে সকল কাজে সামাজিক মর্যাদা কম, সে ক্ষেত্রে মজুরি বেশি দিয়ে শ্রমিক নিয়োগ করতে।

১১. অতিরিক্ত আয়ের সুযােগ : যে সকল পেশায় অতিরিক্ত আয়ের সুযােগ রয়েছে সে সকল পেশায় মজুরি কম হয়। পক্ষান্তরে, যে সকল পেশায় অতিরিক্ত আয়ের সুযােগ নেই, সে সকল পেশায় মজুরি অধিক হয়।

আরো পড়ুনঃ

১২. আনুষঙ্গিক সুবিধা : যে সব পেশায় শ্রমিকদের মজুরি ছাড়াও কম মূল্যে বা বিনামূল্যে বাসস্থান, শিশুদের শিক্ষা, পরিবারের চিকিৎসা, যাতায়াত প্রভৃতি আনুষঙ্গিক সুযােগ-সুবিধা দেওয়া হয়, সে সকল পেশায় শ্রমিকের মজুরি।

১৩. চাহিদার মাত্রা : যে পেশায় শ্রমের যােগান অপেক্ষা শ্রমের চাহিদা বেশি, সে পেশায় মজুরি বেশি হয়।
বর্তমান বিশ্ব বাজারে কম্পিউটার প্রােগ্রামারের চাহিদা বেশি, তাই তাদের মজুরিও অধিক হবে।

আশা করি মজুরি কি মজুরি কাকে বলে এবং বিভিন্ন পেশায় মজুরি হারের পার্থক্যের কারণ কি কি তা বুঝাতে সক্ষম হয়েছি আরো কিছু জানার থাকলে নিচে কমেন্ট করে জানাতে পারেন… ধন্যবাদ

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button