InsuranceTechWorld

সিনেটে ফের ফেসবুক ও টুইটার প্রধান সমালোচনার মুখে

ফেইসবুক ও টুইটার প্রধান নির্বাহী অনলাইনে হাজির হয়েছিলেন মার্কিন সিনেটের সামনে এবং সেখানে মার্কিন নির্বাচন নিয়ে প্রশ্ন করা হয় তাদেরকে।

সিনেটে ফের ফেসবুক ও টুইটার প্রধান সমালোচনার মুখে

আরো পড়ুন….

নীতিমালা প্রশ্নের কড়া সমালোচনার মুখেও পড়তে হয়েছে দুই প্রধান নির্বাহী ফেসবুক প্রধান মার্ক জুকারবাগ এর প্রধান কে.ডেমোক্রেট রা প্রশ্ন করেছিলেন মার্কিন প্রেসিডেন্টের নির্বাচন জালিয়াতির দাবিতে শুধু বিতর্কিত দেওয়াই যথেষ্ট ছিল কি অন্যদিকে জুডিশিয়াল কমিটির রিপাবলিকান সদস্যরা জিজ্ঞেস করেছিলেন এ ধরনের পদক্ষেপ প্রযুক্তি-প্রতিষ্ঠান নেওয়া ঠিক হবে না।

এরপর বিবিসি উল্লেখ করেছে তিন সপ্তাহের মধ্যে তৃতীয় বারের মত নিজ নিজ বক্তব্য তুলে ধরেছেন ফেইসবুক প্রধান। আবারও প্রশ্ন উঠেছিল সামাজিক মাধ্যম প্রতিষ্ঠান নিরাপত্তা দেওয়া আইন ধারা 233 নিয়ে শঙ্কা প্রকাশ করেছেন সামাজিক মাধ্যম প্রতিষ্ঠানগুলো কোন কিছুর নামিয়ে ফেলতে, লেভেল জুড়তে এবং কোন কিছু করা ছাড়াই রেখে দেওয়ার মধ্য দিয়ে সম্পাদকীয় সিদ্ধান্ত নিয়েছেন বলে জানা যায়।

রিপাবলিকান সিনেটর দের ভাসে আরো জানা যায় এ ব্যাপার গুলো তাদের প্রকাশকের পরিণত করেছে তারা আর আগের মত শুধু তথ্য বিতরণকারী অবস্থানে নেই এবং ফলে 230 যারা নিরাপত্তা পাওয়া উচিত নয় তাদের। আপনাদেরকে উঠে দাঁড়াতে এবং মামলার শিকার না হয়ে বড় হয়ে উঠতে সাহায্য করেছে কিন্তু আপনারা এটি ব্যবহার করছেন উন্মত্ত হয়ে উঠেছে।

রিপাবলিকানরা মার্কিন নির্বাচনের সময় নেওয়া নিজ নিজ পদক্ষেপের ব্যাপারে সাফাই গেয়েছেন দুই প্রধান নিবার্হী প্রেসিডেন্সিয়াল নির্বাচন প্রার্থী বর্তমান নবনির্বাচিত প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন নিয়ে লেখা নিয়োগ পোস্ট নিবন্ধ সরিয়ে দেওয়া টা ভুল ছিল কিন্তু নির্বাচন জালিয়াতির অভিযোগ তুলে পোস্ট করেছিলেন তাতে শুধু জুড়ে দেওয়া এবং তা গোপন করে দেওয়া যথেষ্ট ছিল কিনা তা নিয়ে প্রশ্ন করেন সেটা আইনস্টাইন উত্তর জানান তিনি ব্যবহারকারীদের প্রসঙ্গ বিশ্বাসী এবং আরো বড় আলোচনা সংযুক্ত করা কি সঠিক বলে মনে করেন।.

অন্যদিকে সিনেটর ফাইন্যান্স টাইম ফেইসবুক প্রধান জায়গার বাপকে জিজ্ঞাসা করেন তিনি নির্বাচনের ফলাফল প্রকাশ ঠেকাতে যথেষ্ট করেছেন কিনা ওই সময়ে ট্রানস্ফের নির্বাচন চালিয়েছে তাদের পরপর হেয়ারস্টাইল ভোটের পর যে তিন লাখেরও বেশি মানুষের কাছে ছড়িয়ে ছিল উল্লেখ করেন সেটা বলেন আমি বিশ্বাস করি এক্ষেত্রে আমরা উল্লেখযোগ্য পদক্ষেপ নিতে পেরেছি ব্যবহারকারীদের তথ্য বিষয়টি উল্লেখ করেন ফেসবুক প্রধান।

Related Articles

Back to top button